সাংবাদিক নাদিয়া শারমিনের বাড়িতে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনায় অপরাধীদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবি সমমনা সাংবাদিক ফোরামের

208

অনলাইন ভিত্তিক সংগঠন সমমনা সাংবাদিক ফোরামের আয়োজনে আজ বুধবার বেলা ১১.৩০ টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে এ মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তরা অবিলম্বে অপরাধীদের গ্রেফতার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন। এসময় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি মোরসালিন নোমানী বলেন, যখনই যে শাসকগোষ্ঠী থাকুক না কেন সাংবাদিকদের ক্ষেত্রে তাদের আচরণ অভিন্ন। বাগেরহাটের প্রশাসনের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেন, তাদের অবিলম্বে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। যে সকল সাংবাদিকদের উপরে হামলা মামলা হয়েছে তার বিচারেরও দাবি করেন জানান তিনি। ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক নির্বাহী পরিষদ সদস্য গোলাম মুজতবা ধ্রুব বলেন, সাংবাদিকদের সকল বিপদে আমরা পাশে আছি। যারা নাদিয়া শারমিনের গ্রামের বাড়িতে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করেছেন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নিলে ভবিষ্যতে কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে। সাব এডিটরস কাউন্সিলের সাবেক নির্বাহী পরিষদ সদস্য মো. শহীদ রানার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক রেজাউল করিম রেজা, টিসিএ এর সভাপতি মাহবুব আলম, সিনিয়র সাংবাদিক হাসান কাজল, সিনিয়র সাংবাদিক আশিষ কুমার দে, ঢাকা সাব এডিটরস কাউন্সিলের সাবেক সভাপতি নাসিমা আক্তার সোমা, সাব এডিটরস কাউন্সিলের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাফর ইকবাল খান, সাংবাদিক নেতা রফিকুল ইসলাম সুজন, ডিইউজের দৈনিক করতোয়া ইউনিটের ডেপুটি ইউনিট চীফ মিজানুর রহমান, স্বাধীন বাংলা সাংবাদিক ফোরামের নির্বাহী সদস্য কলিমুল্লাহ নয়ন, বিটিভির সিনিয়ার সাংবাদিক মাসুদ রানা, গ্লোবাল টিভির ইমরানুল আজিম চৌধুরী, ঢাকা পোষ্টের মুসা মল্লিক, সংবাদ প্রতিদিনের সিনিয়র রিপোর্টার মিঠুন সরকার, সারা বাংলার চীফ রিপোর্টার উজ্জ্বল জিসান, এশিয়ান টিভির সিনিয়র রিপোর্টার রাকিব মানিক, বৃহত্তর ঢাকা সাংবাদিক ফোরামের দপ্তর সম্পাদক আতিকুল ইসলাম, সিনিয়র সাংবাদিক আশরাফুল ইসলাম ইমন, ডিবিসির নিউজ রুম এডিটর নিয়াজ মোর্শেদ, মুখপাত্রের বিশেষ প্রতিনিধি এস. এম রাসেল আহমেদ প্রমুখ।